কনের বাড়ি খুঁজে খুঁজে নাজেহাল, অবশেষে বিয়ে না করেই গেল বরপক্ষ

বিচিত্র পৃথিবীর বিচিত্র সবাই আমরা, কার মনে কি থাকে সেটা আসলেই কেউ আমরা বুঝতে পারি না। বিয়ে করবে বলে বরের কাছ থেকে বিয়ের আগেই কুড়ি হাজার টাকা হাতিয়ে নেয় এক কনে, অথচ বিয়ের জন্যই বরপক্ষ কনে পক্ষকে আর খুঁজে পায় না। সত্যিই এমন একটি অস্বাভাবিক ঘটনা ঘটলো উত্তর প্রদেশ। (Uttar Pradesh : Bridegroom party does not find the brides home and does not able to marry)

জানা যায়, বরের বাড়ি উত্তরপ্রদেশের আজম ঘরের কোতোয়ালি এলাকায়, এবং কনের বাড়ি উত্তরপ্রদেশের মাউ এলাকায়। এই বিয়ে ঠিক করেছিল এক ঘটক, কিন্তু কোনদিনই বরপক্ষ কনেপক্ষের বাড়িতে যায়নি, যার জন্যই ঘটে গেল এমন বিপত্তি। হয়তো বরপক্ষ কোনদিনই কল্পনা করতেও পারেনি এরকম হবে।

১০ই, ডিসেম্বর উত্তরপ্রদেশের আজম গড় এর কোতোয়ালি এলাকার থেকে বরপক্ষ বিয়ে করতে যায় উত্তরপ্রদেশের মাও এলাকায়। সারারাত ধরে কনেপক্ষের দেওয়া ঠিকানা খুঁজে না পাওয়ায় শেষে বাড়ি ফিরে যেতে হয় বরপক্ষকে। খবর সূত্রে জানা গেছে যে, এই বরের আগে বিয়ে হয়েছিল কিন্তু তার বউ বাপের বাড়ি গিয়ে আর ফেরেনি। বাড়ির লোকজন ঠিক করেছিল ছেলের আবার বিয়ে দেবে এবং দিতে গিয়েই এরকম বিপদে পরতে হবে তা হয়তো তারা কোনদিনও ভাবতে পারেনি। (Kotoyali, Ajam Garh, Uttar Pradesh to Mao area, Uttar Pradesh)

শীতের রাতে সারারাত ধরে কনেপক্ষের বাড়ি খুঁজে খুঁজে হয়রান হয়ে গেল তারা। ঘটককে জিজ্ঞাসা করা হলে সেও কিছু বলতে না পারায় অপমান করলো তাকে বরপক্ষ এবং সারারাত আটকে রাখা হলো ঘটককে।

এই ব্যাপারে পুলিশের থানায় অভিযোগ করা হয়েছে। জানা গেছে সেই কণে বিয়ের কেনাকাটা করার জন্য বরের কাছ থেকে কুড়ি হাজার টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। কনে পক্ষ থেকে বরপক্ষকে যে ঠিকানা দেওয়া হয়েছিল তার কোনো সত্যতাই নেই। এক কথায় বলতে গেলে ছেলেটির বউ ভাগ্য অত্যন্ত খারাপ।

Bridegroom party does not find the brides home and does not able to marry
কনের বাড়ি খুঁজে খুঁজে নাজেহাল, অবশেষে বিয়ে না করেই গেল বরপক্ষ (প্রতীকী ছবি)