“মোদিজীর অত্যাচারে মারা গেছেন সুষমা স্বরাজ এবং অরুণ জেটলি,” – উদয়নিধি, ডিএমকে প্রধানের ছেলে

মন্তব্য পাল্টা মন্তব্যের মধ্যে বেশ সরগরম হয়ে উঠেছে ভারতবর্ষের রাজনীতি। সম্প্রতি তামিলনাড়ুর এক তরুণ নেতার মুখে শোনা গেল পুরনো অভিযোগের কথা। তিনি আরো একবার সকলের সামনে রাখলেন তার বক্তব্য। তিনি সকলকে জানালেন যে, নরেন্দ্র মোদির অত্যাচারের ফলে মারা গেছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ এবং অরুণ জেটলি। নরেন্দ্র মোদি বিজেপির বর্ষীয়ান নেতাদের মূলস্রোত থেকে সরিয়ে দেবার চেষ্টা করেছেন। এই অভিযোগ যিনি এনেছেন তিনি আর কেউ নয়, ডিএমকে প্রধান এম কে স্ট্যালিনের ছেলে উদয় নিধি স্ট্যালিন। (Tamilnadu Politics News: DMK leader Uday Nidhi Stalin slams pm narendra modi)

তামিলনাড়ুতে বিধানসভা ভোটের পারদ আস্তে আস্তে চরমে পৌঁছে গেছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্বাচনী জনসভার বিরোধিতা করেছে দক্ষিণের একাধিক রাজ্য। এই স্রোতেই বজায় রেখে বৃহস্পতিবার মোদিকে আক্রমণ করেছেন এই তরুণ নেতা। যদিও তার বক্তব্যের বিরোধিতা করেছেন সুষমা স্বরাজ এবং অরুণ জেটলির মেয়েরা।

তরুণ নেতা বৃহস্পতিবার জানান যে, বিজেপিতে সুষমা স্বরাজ বলে এক নেত্রী ছিলেন। কিন্তু ক্রমাগত মোদির চাপ সহ্য না করতে পেরে তিনি মারা গেছেন। একইভাবে মারা গেছেন অরুণ জেটলি ও। আমি তামিলনাড়ুর মুখ্যমন্ত্রী নয় যে ভাই আপনার সামনে মাথা নত করবো। আমি উদয় নিধি স্টালিন। কালাই গোনাগারের নাতি।

যদিও খুব একটা প্রসঙ্গত বলে মনে হচ্ছে না তার এই অভিযোগ। যেখানে স্বয়ং সুষমা স্বরাজ এবং অরুণ জেটলির কন্যা এই প্রসঙ্গে বিরোধিতা করেছেন, সেখানে জনসাধারণের খুব একটা কিছু বলার থাকে না। সুষমা স্বরাজের মেয়ে বাঁশরী স্বরাজ টুইট করে রেখেছেন যে, স্রেফ প্রচারের জন্য আমার মাকে এইভাবে জড়াবেন না। আমার মা মোদীজি কে যথেষ্ট শ্রদ্ধা এবং সম্মান করতেন। আমার পরিবারের দুঃসময় প্রধানমন্ত্রী এবং বিজেপি দল আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। আমরা আপনার এই বিবৃতি মেনে নিতে পারছিনা।

অরুণ জেটলির মেয়ে সোনালী ও ট্যুইট করে জানিয়েছেন একই কথা। তিনি লিখেছেন যে, আমরা বুঝতে পারছি আপনার উপর নির্বাচনে চাপ রয়েছে। কিন্তু তাই বলে এইরকম মিথ্যা কথা বলবেন না দয়া করে। আমরা এই মিথ্যা এবং অশ্রদ্ধা দেখে চুপ করে থাকতে পারলাম না। রাজনীতির বাইরে ও আমার বাবার সঙ্গে মোদিজীর একটি ভালো সম্পর্ক ছিল। আমার বাবা মারা গেছেন শুধুমাত্র অসুস্থতার জন্য। এর পেছনে অন্য কোনো রাজনৈতিক খেলা খেলার চেষ্টা করবেন না।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, সুষমা স্বরাজ এবং অরুণ জেটলি দুজনেই অসুস্থতার কারণে লোকসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন নি। অন্যদিকে জয়ললিতার মৃত্যুর পর তামিলনাড়ুর রাজনীতিতে সেইভাবে কাউকে দেখা যায়নি। তৈরি হয়েছে একটি শূন্যস্থান। তাই জয়ললিতার দল এআইএডিএমকে বিজেপিকে সঙ্গে করে লড়াইয়ে নেমেছে। অন্যদিকে কংগ্রেস এবং ডিএমকে বিজেপিকে আটকানোর জন্য মরিয়া হয়ে রয়েছে। ফলাফল কি হবে তা জানা যাবে মে মাসে।

dmk leader uday nidhi stalin slams pm narendra modi
“মোদিজীর অত্যাচারে মারা গেছেন সুষমা স্বরাজ এবং অরুণ জেটলি,” – উদয়নিধি, ডিএমকে প্রধানের ছেলে