চম্পাহাটি থেকে উদ্ধার করা হলো প্রায় এক লক্ষ টাকার নিষিদ্ধ শব্দবাজি। ধৃত ৩

Champahati : করোনা মোকাবিলার মধ্যেই শুরু হয়ে গেছে বাঙ্গালীদের একের পর এক অনুষ্ঠান। সামাজিক দূরত্ব বিধি মেনে আয়োজন করা হয়েছে উৎসবের। আজ লক্ষ্মীপুজো। কিছুদিন আগেই বিসর্জন হয়েছেন মা দুর্গা। মা দুর্গার বিসর্জন এর পরই তোড়জোড় শুরু হয়ে গেছে মা কালীর আহবান এর। ইতিমধ্যেই অনেক জায়গায় বাজি তৈরির কাজ শুরু করে দিয়েছেন কর্মচারীরা। প্রত্যেক বারের মতো এবারেও শব্দ বাজি না ফাটানোর জন্য বারবার সতর্ক করে দিচ্ছে কেন্দ্র। কিন্তু তার মধ্যে বিভিন্ন স্থানে গোপনে শব্দ বাজি তৈরি হবার কাজ জোরকদমে শুরু হয়ে গেছে। (South 24 Pgs News : Police rescues lakh rupees illegal firecrackers from Champahati)

কালী পুজোর কিছুদিন আগেই বারুইপুর জেলা পুলিশ সুপার কামনাশিস সেন কড়া পদক্ষেপ নিয়েছেন নিষিদ্ধ বাজি উদ্ধারে। প্রতিবছর সরকারের বারণ করা সত্ত্বেও ভারতবর্ষের আনাচে-কানাচে শুরু হয়ে যায় নিষিদ্ধ বাজি তৈরি করার কারখানা। তাই এবার প্রথম থেকেই নিষিদ্ধ বাজি উদ্ধারের কাজে লেগে পরেছে পুলিশ। ইতিমধ্যেই বারুইপুর পুলিশ সুপারের নির্দেশে উদ্ধার করা হল ১ লক্ষ ২২ হাজার ৫০০ টাকার নিষিদ্ধ শব্দবাজি। (Baruipur District Police Super Kamanasish Sen recuses illegal firecrackers worth 1 lakh 22 thousand and 5 hundred rupees from Champahati, South 24 Parganas, West Bengal )

এই গোটা ঘটনা থেকে এখনো পর্যন্ত গ্রেফতার করা হয়েছে তিনজন ব্যবসায়ীকে। ধৃতদের নাম ফকির সর্দার, সুপর্ণ নস্কর, খোকন সর্দার। অভিযুক্তদের বারুইপুর আদালতে তোলা হবে শুক্রবার। গোটা ঘটনার তদন্ত করছে পুলিশ। এরপর তাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেবেন আদালত। এর আগেও তারা এরকম বাজি তৈরি করেছেন কিনা তাও তদন্ত করে দেখা হবে। (Fakir Sardar, Suparno Naskar and Khokon Sardar are arrested)

এই প্রসঙ্গে পুলিশ জানিয়েছেন যে, এখনো পর্যন্ত উদ্ধার হওয়া নিষিদ্ধ বাজি আনুমানিক মূল্য হল ৬ লক্ষ টাকা। এইরকম অভিযান কালীপুজো পর্যন্ত চালানো হবে। পুলিশ আশা করছেন এরকম আরো অনেক শব্দ বাজি আমরা উদ্ধার করতে পারবেন। (Champahati theke nisiddho sobdo baji uddhar)

police rescues lakh rupees illegal fire crackers from champahati
চম্পাহাটি থেকে উদ্ধার করা হলো প্রায় এক লক্ষ টাকার নিষিদ্ধ শব্দবাজি। ধৃত ৩