টলি কুইন কোয়েল মল্লিকের দ্বিতীয় করোনা রিপোর্টও পজিটিভ! মাথায় হাত সবার

এইমাত্র খবর পাওয়া গেল কোয়েল মল্লিকের দ্বিতীয়বারের করোনা টেস্ট রিপোর্টও পজিটিভ এল। এছাড়া কোয়েলের স্বামী নিসপাল সিং এবং কোয়েলের মা দীপা মল্লিকের কোন রোগ ধরা পড়েছে। তবে অভিনেতা রঞ্জিত মল্লিকের দ্বিতীয়বার করোনা টেস্ট করার পর রেজাল্ট নেগেটিভ এসেছে বলে জানা গেছে।

জুলাই মাসের দশ তারিখ নাগাদ করনা রোগ ধরা পড়ে রঞ্জিত মল্লিক দীপা মল্লিক কোয়েল ও নিসপাল তথা পুরো মল্লিক পরিবারে। জানা গেছে এই রিপোর্টের দু সপ্তাহ আগেই জ্বর এবং সর্দি-কাশিতে পুরো পরিবারের সবাই আক্রান্ত ছিল। অল্প অল্প করে কর্নার উপসর্গ দেখা দিচ্ছিল।ফলে স্বাভাবিকভাবেই প্রত্যেকের লালারসের স্যাম্পেল নেওয়া হয়।রিপোর্ট আসার পরেই জানতে পারা যায় প্রত্যেকেরই করোনা রোগ ধরা পড়েছে।

আর এই খবরটি কোয়েল নিজেই টুইট করে সবাইকে জানিয়ে দেন। পরবর্তীকালে 17 তারিখে আবার লালা রসের স্যাম্পেল পরীক্ষার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। তবে দুর্ভাগ্যের বিষয় হলো যে এবারও সেই রিপোর্টে পজেটিভ ধরা পড়েছে কোয়েল মল্লিক ও নিসপাল রানের। তবে একটা আশার কথা হলো যে রঞ্জিত মল্লিকের রিপোর্ট এবারে নেগেটিভ এসেছে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই কোয়েল এর ফ্যান সহ গোটা পশ্চিমবঙ্গের মানুষ মল্লিক পরিবারের সদস্যদের দ্রুত আরোগ্য কামনার জন্য প্রার্থনা করছেন।

এ প্রসঙ্গে আরেকটি কথা না বললেই নয়। এই কয়েক মাস আগেই আমরা কোয়েল-নিসপালের খুশির সংবাদ শুনতে পেয়েছিলাম। মে মাসের 5 তারিখে মা হওয়ার সৌভাগ্য লাভ করেন কোয়েল মল্লিক। নিজের সন্তানের ফটো কোলে দিয়ে একটা ফটো শেয়ার করেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেই পরিস্থিতিতে অভিনেত্রীর কথা চিন্তা করে পরিবারের প্রত্যেকেই চিন্তাগ্রস্থ ছিলেন। কিন্তু চিকিৎসকদের কথা শুনে জানতে পারা যায় মা এবং সন্তান দুজনেই সম্পূর্ণভাবে রোগ মুক্ত রয়েছেন। তবে করোনার ভয়াবহতার কথা ভেবে কোয়েল-নিসপাল ছাড়া আর কাউকেই কাছে যাওয়ার অনুমতি দেয়া হয়নি।

ফলে স্বাভাবিকভাবেই এখন কোয়েলের নবজাতককে নিয়ে সবাই দুশ্চিন্তাগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন। দ্বিতীয়বারের জন্য টলি কুইনের রিপোর্ট পজিটিভ আশায় প্রত্যেকে চিন্তাগ্রস্থ। তবে কোয়েল আগেই উল্লেখ করেছেন তার সন্তান সুস্থ স্বাভাবিক অবস্থাতেই আছে

হাই বন্ধুরা, প্রতিদিনের গুরুত্বপূ্র্ণ খবর পাওয়ার জন্য bangla.365reporter বুকমার্ক করে রাখুন। আর ফেইসবুক, টুইটার এবং পিন্টারেস্টে আমাদের সঙ্গে কানেক্ট করতে পারেন। ধন্যবাদ।