কোয়ারেন্টাইনের করোনা আক্রান্ত মহিলাকে ধর্ষণ! মামলা অভিযুক্তের বিরুদ্ধে!

গোটা পৃথিবী জুড়ে কালো ছায়া বিস্তার করেছে করোনা রোগ। বিজ্ঞানীরা ঘুম খাওয়া-দাওয়া বাদ দিয়ে এই ভয়াবহ রোগের ওষুধ আবিষ্কার করার নিরলস প্রচেষ্টা করছেন। কিন্তু সঠিকভাবে কোন আলোর দিশা এখনো তারা পাননি। তবে ভারত আমেরিকা এবং রাশিয়ার বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন খুব শীঘ্রই তারা করোনার ওষুধ আবিষ্কার করতে সমর্থ হতে চলেছেন।

ফলে লোকজন আবার খানিকটা হলেও আশার আলো দেখতে শুরু করেছে। আর প্রথম থেকেই রাজ্য তথা কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে নাগরিকদের নির্দিষ্ট দূরত্ব বৃদ্ধি, স্বাস্থ্যবিধি আর মাস্ক পড়ে থাকতে বলা হয়েছে। কিন্তু তা সত্ত্বেও কোন ভাবেই বাগে আনা যাচ্ছে না এই দুঃসাধ্য রোগটিকে।

কিন্তু এই ভয়ানক পরিস্থিতির মাঝেও কয়েকটা মানুষের জন্য মন মানসিকতার জন্য সমাজের মনুষত্যকে প্রশ্নচিহ্নের মুখে ফেলে দিয়েছে। আর ঠিক এরকমই নারকীয় ঘটনা ঘটেছে মহারাষ্ট্রে। বিশেষ সূত্রে জানা গেছে একজন 40 বছরের মহিলার করোনা রোগ ধরা পড়ে। এরপর তাঁকে ভর্তি করা হয় পানভেল এর ইন্ডিয়াবুলস কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে। আর অন্যান্যদের সাথে একটা লোককে সেখানে নিয়ে আসা হয়েছিল।

তো গত বৃহস্পতিবার রাত্রিবেলায় ওই মহিলার রুমে ঢুকে তাকে ওই ব্যক্তি ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ জানিয়েছেন ওই মহিলা। কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের মতো জায়গায় তারপর আবার ধর্ষনের মত এরকম পৈশাচিক ঘটনার সামনে আসতেই সারাবিশ্বের জুড়ে প্রতিবাদের আগুন দাউদাউ করে জ্বলছে। এত বড় দুঃসহ খারাপ পরিস্থিতির মধ্যেও মানুষের মনে এই জঘন্য চিন্তা ভাবনা আসে কি করে তা নিয়ে মানুষের মাথা খারাপ হয়ে যাচ্ছে।

ফলে স্বভাবতই কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে থাকা মহিলা গুলির নিরাপত্তা নিয়েও প্রশ্ন চিহ্ন তৈরি হচ্ছে। পুলিশ অভিযুক্ত ওই লোকের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধি মোতাবেক 376 ধারায় মামলা ফাইল করেছে। এর সাথে সাথে ঘটনাটি নিয়ে তদন্ত শুরু হয়ে গেছে। পুলিশ সাব বলে দিয়েছে ওই ব্যক্তি করো না মুক্ত হলেই তাকে শীঘ্রই গ্রেফতার করে আদালতে হাজির করবে।

হাই বন্ধুরা, প্রতিদিনের গুরুত্বপূ্র্ণ খবর পাওয়ার জন্য bangla.365reporter বুকমার্ক করে রাখুন। আর ফেইসবুক, টুইটার এবং পিন্টারেস্টে আমাদের সঙ্গে কানেক্ট করতে পারেন। ধন্যবাদ।