আরও বর্ণময় হয়ে উঠল ভারতীয় বায়ুসেনা, ট্যুইট করে জানালেন প্রধানমন্ত্রী

আজ সমগ্র ভারতবর্ষে সুখে স্বাচ্ছন্দ্যে নিরাপদে জীবন-যাপন করছেন এর পিছনে অন্যতম প্রধান খাত হলো জওয়ানদের। দেশের বীর সেনারা যারা কিনা নিজের জীবনকে তুচ্ছ করে দেশের সুরক্ষার্থে আজীবন লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন তাদের এই বলিদান এর জন্যই দেশ গর্বিত। ভারতবাসীদের জীবনে সুখ স্বাচ্ছন্দ্য ফেরাতে নিজেদের সুখ-স্বাচ্ছন্দ্য ভুলে যায় একমাত্র সৈনিকরাই। দেশের বায়ুসেনারা যারা কিনা আকাশ পথেও সর্বদা সুরক্ষার জাল বিছিয়ে রাখেন, জানেন কি আজকের এই বিশেষ দিনটি শুধু তাদের জন্য উৎসর্গ করা হয় !

PM and Army Plane
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং আর্মি বিমান

হ্যাঁ ঠিকই শুনেছেন আজ ৮ই অক্টোবর বায়ু সেনা দিবস হিসেবে পালন করা হয় সারা দেশ ব্যাপী। আজকের দিনে ১৯৩২ সালে শুরু হয়েছিল এক ঐতিহাসিক গৌড় গৌরবময় মুহূর্ত। মাত্র ৬ জন পাইলট এবং ১৯ জন বায়ুসেনা কর্মীদের হাত ধরে শুরু হয়েছিল পথ চলা। দিনের পর দিন যত আঘাত এসেছে তত শক্তিশালী হয়ে উঠেছে দেশের বায়ু সেনারা।

দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র সিং মোদীর তার নিজস্ব টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে দেশের বীর সেনা তথা বায়ু সেনাদের শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেছেন (365 Reporter Bangla Country News : Indian Army is more colourful now. PM Narendra Modi salutes Indian Army from Twitter on Indian Air Force Day #AFDay2020.)।

আজ বীর জওয়ানরা এবং বায়ু সেনারা দেশের জন্য প্রাণপাত করছেন প্রতিনিয়ত তাই দেশ আজ সুরক্ষিত। তাই সমগ্র ভারতবাসীর উচিত ভারত মাতার বীর সন্তান দের প্রতি কৃতজ্ঞ থাকা। প্রতিমুহূর্তে তারা লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন মানবতার স্বার্থে। ভারত তাদের কাছে মায়ের মত। নিজের মায়ের সম্মান রক্ষার্থে এবং সুরক্ষার জন্য প্রাণপাত করে দিতেও তারা পিছপা হয় না তাই সমগ্র দেশ আজ গর্বিত তাদের জন্য।

প্রধানমন্ত্রী তার নিজস্ব টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে দেশের এই বীর জাওয়ানদের এবং বায়ু সেনাদের প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেছেন। তিনি জানিয়েছেন এই বায়ুসেনার সমগ্র দেশকে আকাশপথে সম্পূর্ণ সুরক্ষিত রাখার জন্য প্রতিনিয়ত লড়ে যাচ্ছেন। শুধু বায়ুসেনারাই নয় দেশের সমস্ত বীর সেনারা দেশকে সর্বদা সুরক্ষিত রেখেছেন। সমগ্র ভারতবর্ষে কৃতজ্ঞ থাকবে সর্বদা তাদের কাছে এই বীর সন্তানদের কাছে।