ইন্ডাস্ট্রির অনেক গোপন তথ্য নিয়ে বোমা ফাটালেন প্রিয়াঙ্কা

খুব ছোটবেলায় পা দিয়েছিলেন টলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে। কোন সাপোর্ট ছাড়াই শুধুমাত্র অভিনয়দক্ষতার দ্বারা আজকে তিনি ছোটপর্দায় এবং এই সিরিজের একটি জনপ্রিয় মুখ। তার হাতে আছে পরপর ছবির কাজ। সম্ভবত বছরের শেষ দিকে চলে যাবেন মুম্বাইয়ে। যাবার আগে নিজের জীবনের কিছু অজানা কথা শেয়ার করে গেলেন সংবাদমাধ্যমের সাথে। তিনি আর কেউ নয় বাঙালির একজন মিষ্টি অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা ভট্টাচার্য (365 Reporter Bangla Entertainment News from Tollywood : actress Priyanka Bhattacharya is going to debut in a movie)।

প্র তাহলে মেগাসিরিয়াল কে কি একেবারে বিদায় জানানো হলো ?

হ্যাঁ,,, মেগা সিরিয়ালকে আমি চিরকালের জন্য বিদায় জানালাম। তবে আমি আমার পরিচিতি এ টেলিভিশনের পর্দা থেকেই পেয়েছি। আমার জীবনের ক্যারিয়ারের শুরু এই মেগা সিরিয়াল থেকে। তাই এই জায়গাটা সব সময় আমার কাছে খুব স্পেশাল। তবে নিজেকে আরও উন্নতির দিকে এগিয়ে নিয়ে যাবার জন্য আমাকে বড় পর্দায় মনোযোগী হতে হচ্ছে।

TV actress Priyanka Bhattacharya in gorgeous look
দুর্দান্ত লুকে অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা (ফটো ক্রেডিটঃ ফেইসবুক)

প্র তাহলে কি ছবি করছো ?

আপাতত দুটি ছবির কাজ হাতে রয়েছে। তবে আমাকে অনুমতি না দিলে এখনই আমি কিছু জানাতে পারবো না।

প্র তাহলে এইটুকু অন্তত বলো যে অফারটা কিভাবে এলো।

আমাকে মাস দুয়েক আগে একজন ক্যাস্টিং ডিরেক্টর ফোন করে ছবির জন্য অফার দিয়েছিলেন। আমাকে দেখে তার ভালো লাগে। তিনি আমাকে সিলেক্ট করার পর আমি কাজের অফার টা পাই।

প্র তুমি তো এখন ছোট পর্দা বড় পর্দা সবেতেই কাজ করেছো, সবথেকে ভালো কোনটা লাগলো?

মেগা সিরিয়ালের অভিনয়টা খুব লাউড হয়। ওয়েব সিরিজে আমাকে ভীষণ স্বাভাবিক অভিনয় করতে হয়। এই ছবিতে অভিনয় করাটা আমার জন্য একটি আলাদা অভিজ্ঞতা। সবার মতই আমার কাছে এটি একটি স্বপ্ন ছিল। সবথেকে বেশি আনন্দ আমি সিনেমা করেই পেয়েছি।

প্র তুমি খুব কম বয়সে টলিউড পাড়াতে এসেছ, কিভাবে পেলেই সুযোগ ?

আমার জার্নি মাত্র ১৩ বছর বয়সে শুরু হয়। স্বাভাবিকভাবে তখন আমি কিছুই বুঝলাম না। হাওড়ার আন্দুলে আমার বাড়ি (Actress Priyanka Bhattacharya from Andul, Howrah)। তাই একটা গ্রাম থেকে উঠে এসে টলিগঞ্জ লড়াই করাটা আমার কাছে একেবারেই সহজ ছিল না। তবে আমার বাবা-মা আমার পাশে সব সময় ছিলেন। আমাকে সব জায়গায় ওনারাই নিয়ে যেতেন। (তথ্যসূত্র: নিউজ ১৮ বাংলা)