আত্মহত্যা করলেন একজন ১৮ বছরের জনপ্রিয় টিকটক স্টার – Tik Tok Star Dazhariaa Quint Noyes aka Dee Death

Louisiana : আত্মহত্যা করলেন এক টিক টক স্টার। অল্প বয়সেই তিনি এরকম একটি সিদ্ধান্ত নিলেন। মাত্র ১৮ বছর বয়সে তার। টিকটকে বেশ জনপ্রিয়তা অর্জন করেছিলেন এই ১৮ বছরের ড‍্যাজহারিয়া কুইন্ট নয়েজ। তিনি টিকটক চালানোর সাথে সাথে ইনস্টাগ্রামে ব্লগ বানাতো। টিকটক এবং ইনস্টাগ্রামে যথেষ্ট জনপ্রিয়তা অর্জন করেছিল ওই ১৮ বছরের তরুণী। (News International : Tik Tok star Dazhariaa Quint Noyes from Baton Rouge, Louisiana, USA commits suicide at the age of 18)

প্রচুর ফলোয়ার ছিল তার। তিনি একটি কসমেটিকের ব্র্যান্ড করেছিলেন এবং যেগুলো প্রচুর পরিমাণে বিক্রি হতো। এই ব্র্যান্ডটি তিনি সম্পূর্ণ নিজের মতো করে তৈরি করেছিল এবং জনপ্রিয়তা অর্জন করেছিল। এত জনপ্রিয়তা থাকার শর্তেও অবসাদ তাকে ঘিরে ছিল। ১৮ বছরের এই তরুণী সোমবার দিন আত্মহত্যা করে নিজের বাড়িতেই। একজন ভারতের টিকটক স্টার আত্মহত্যা করেছিলেন এবং যার পরেই এই ঘটনা আবার ঘটল। (Dazhariaa death)

কিসের কারণে এই ধরনের একটি সিদ্ধান্ত নিলেন সেটা এখনো জানা যায়নি টিকটক এ নিজের সাফল্যে তিনি ভালোই তৈরি করেছিলেন। নয়েসের বাবা তার মেয়ের এই ধরনের সিদ্ধান্তে একেবারে ভেঙে পড়েছেন। তিনি বলেন যে, “মেয়ের কিসের কষ্ট ছিল সে ব্যাপারে কখনোই তিনি জানতে পারেন নি। এরকম ভাবে হঠাৎই একটি সিদ্ধান্ত সমস্ত কিছুই শেষ করে দিল”।

নয়েসের সমস্ত ফলোয়ার সমবেদনা জানিয়েছেন তার মৃত্যুর জন্য। আত্মহত্যা করার আগে নয় একটি ভিডিও ইনস্টাতে দিয়েছিলেন এবং যেখানে তিনি লিখেছিলেন যে ,”এই ভিডিওটি হলো আমার শেষ ভিডিও” এবং তার পরপরেই নিজেকে তিনি শেষ করে দেন। খবর সূত্রে জানা গিয়েছে যে বেশ কিছু মাস আগে নয়েজের ব্রেকআপ হয়েছে এবং তার পরেই তিনি অবসাদে ভুগছিলেন। (Dazhariaa Quint last post and video on Instagram and she breaks up some days ago)

তিনি কোন কিছুই বন্ধুবান্ধবকে বলেননি, এমনকি সমস্ত বন্ধুদের থেকেও তিনি দূরে চলে গিয়েছিলেন। টিকটক ভিডিও তিনি আর তৈরি করতেন না। কিসের কারণে এ ধরনের একটি ঘটনা তিনি ঘটালেন, তা এখনও পর্যন্ত কেউ জানতে পারেনি।